বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২ ইং         ১২:৩৭ অপরাহ্ন
  • মেনু নির্বাচন করুন

    পঞ্চগড়ে কৃষকের মুখে তৃপ্তির হাসি; আমন ধানের বাম্পার ফলন


    প্রকাশিতঃ 23 Nov 2022 ইং
    ভিউ- 45
    শেয়ার করুনঃ


    স্টাফ রিপোর্টারঃ

    পঞ্চগড় বাংলাদেশের সর্বশেষ উত্তরের জেলা। এবার এ জেলায় আমন ধানের ভালো ফলন হয়েছে। ফলে কৃষকের মুখে ফুটে উঠেছে তৃপ্তির হাসি। ইতোমধ্যে ধান কাটা শুরু হয়েছে। বেড়েছে কৃষক-কৃষাণীর চরম ব্যস্ততা।


    গতকাল বুধবার ২৩ নভেম্বর জেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, মাঠে মাঠে চলছে ধান কাটা। ধান কাটা শেষে ক্ষেত থেকে মহিষের গাড়ি, ভ্যান, ট্রলিতে করে বাড়িতে নিয়ে এনে মাড়াই করছেন চাষিরা। বাড়ির উঠোনজুড়ে নতুন ধানের ম-ম গন্ধ। কেউ কেউ ধান মাড়াই হয়ে গেলে চালের গুঁড়া তৈরি করছেন। এসব গুঁড়ায় তৈরি হচ্ছে হরেক রকমের পিঠে-পুলি, সুস্বাদু পায়েস। 


    পঞ্চগড় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, এবার আমন মৌসুমে ১ লাখ ৩০ হেক্টর জমিতে উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ১ লাখ ৪৬ হাজার ৪০০ মেট্রিক টন। এর মধ্যে তেঁতুলিয়া উপজেলায় ১১ হাজার ২২৫ হেক্টর জমিতে উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা ১৪ হাজার ৯২৫ মেট্রিক টন, সদর উপজেলায় ২৩ হাজার ৯৫০ হেক্টর জমিতে উৎপাদন ধরা হয়েছে ২২ হাজার ৩৩৪ মেট্রিক টন, আটোয়ারীতে ১৬ হাজার ৮৭৫ হেক্টর জমিতে ২১ হাজার ১১২ মেট্রিক টন, বোদায় ২৪ হাজার ৩০ হেক্টর জমিতে ৪৫ হাজার ৮৯২ মেট্রিক টন এবং দেবীগঞ্জে ২৩ হাজার ৯৩০ হেক্টর জমিতে  ৪২ হাজার ২১২ মেট্রিক টন। ইতোমধ্যে ৮২ হাজার হেক্টর জমিতে ধান কাটা হয়ে গেছে। বাকি জমির ধান কাটা চলছে। এ বছর জেলায় উফশী ব্রিএন ৯৩, স্বর্ণা ব্রি-৫১, ব্রি-৪৯, ব্রি-৫২, ব্রি-৮৭, ব্রি-৩৪, ব্রি-৭৫ ধান আবাদ হয়েছে।অনুকুল আবহাওয়া, সময়োপযোগী বৃষ্টি ও কৃষি বিভাগের পরামর্শ আমন চাষে সুফল মিলেছে।


    জেলার চাকলাহাট এলাকার কৃষক আতিকুর আবাদ করেছেন ব্রি-৯৩ নতুন জাতের ধান। প্রথমবারের মতো এ ধান চাষ করে বাম্পার ফলন হওয়ায় হাসি ফুটেছে তার মুখে। আতিকুর জানান, এবার ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। বিশেষ করে নতুন জাতের ব্রি-৯৩ ধান লাগিয়েছি এবার। বিঘা প্রতি ২৫ মণেরও বেশি ধান আবাদ হওয়ায় খুব ভালো লাগছে। আশা করছি বাজারে দামও পাবো।


    তেঁতুলিয়া উপজেলার রনচন্ডী, তিরনইহাট, শালবাহানের কৃষক আনারুল হক, রমিজুল ও আব্দুল কাদেরসহ কয়েকজন কৃষক জানান, এবার ফলন ভালো হয়েছে। নতুন ধান দিয়ে পিঠা-পুলি তৈরি করে মেহমান আপ্যায়ন চলছে। আশা করছি ভালো দাম পাবো।


    জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত উপ-পরিচালক শাহ আলম মিয়া বলেন, এবার আমন ধানের প্রত্যাশিত ফলন হয়েছে। আমন ধানের বেশ কয়েকটি জাত হিসেবে ব্রি-৯৩, ৮৭, ৭৫, ৩৪ আবাদ হয়েছে। এসব জাতের মধ্যে ব্রি-৯৩ জাতের ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। আমরা চেষ্টা করছি কৃষকদের কাছ থেকে প্রয়োজনীয় পরামর্শ ও কৃষি বান্ধব সরকারের দিক-নির্দেশনা দিতে।

    মুক্তির-৭১ / হু ক


    আপনার মন্তব্য লিখুন
    © 2022 muktir71news.com All Right Reserved.